সর্বশেষ সংবাদ:
সুনামগঞ্জ সরকারি কলেজের ৭৫বর্ষপূর্তি উপলক্ষে শিক্ষার্থীদের রেজিস্ট্রেশন উদ্বোধন মহিলা আ.লীগের সাবেক সভানেত্রী রফিকা রইছের মৃত্যুবার্ষিকী পালিত ফেনীতে নেই ফাঁ’সির মঞ্চ, কুমিল্লা-চট্টগ্রামে যাচ্ছে নুসরাত হ’ত্যার আ’সামিরা টাওয়ার হ্যামলেটস জমিয়তের কাউন্সিল সম্পন্ন : সভাপতি নোমান, সম্পাদক সুফিয়ান কেনিয়া গেলেন পরিকল্পনামন্ত্রী রাধারমণ দত্ত লোকসংস্কৃতির মহারাজা : জেলা প্রশাসক আবদুল আহাদ ছাতকে তিনটি মোটরসাইকেল উদ্ধার – আটক ১ কাশ্মীরে বন্দুকযুদ্ধে নিহত ২ মসজিদে নামাজরত মুয়াজ্জিনের ওপর সন্ত্রাসী হামলা ব্যাটিং ব্যর্থতায় সিরিজ হারল বাংলাদেশ জামালগঞ্জে হাওরে নৌকা ডুবিতে প্রহরীর মৃত্যু আজ জগন্নাথপুর মাতাবে সালমা যৌন কেলেঙ্কারিতে অভিযুক্ত বিচারপতির হাতেই বাবরি মসজিদের রায় রাধারমণ দত্তের মৃত্যুবার্ষিকী আজ সোমবারের জেএসসি-জেডিসি পরীক্ষাও স্থগিত বুলবুলের আঘাতে প্রাণ গেল ৪ জনের ট্রফি নির্ধারণী ম্যাচে সন্ধ্যায় মাঠে নামছে টাইগাররা মেসির হ্যাটট্রিকে শীর্ষে বার্সা সৌদিতে সড়ক দুর্ঘটনায় বাংলাদেশি যুবক নিহত কবিরাজের এক ফুঁক ঢোকে গেলো হাজার বোতলে

হতদরিদ্র সুমনের বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তির সহায়তায় এগিয়ে এলেন ওসি হারুন চৌধুরী

দক্ষিণ সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি::  আবারও হতদরিদ্র এক মেধাবী ও শিক্ষাসংগ্রামী ছাত্রের বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তির সহায়তায় হাত বাড়ালেন দক্ষিণ সুনামগঞ্জ থানার ওসি মো. হারুনুর রশিদ চৌধুরী।

শনিবার দুপুরে সুনামগঞ্জ সদর উপজেলার মোহনপুর গ্রামের শিক্ষাসংগ্রামী হাবিজুর রহমান সুমনকে শাহজালাল বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির জন্য ১০ হাজার টাকা সহায়তা তুলে দেন।

এসময় তিনি তাকে অন্যান্য সহযোগিতারও প্রতিশ্রুতি দেন।

গত বছরও তিনি আরেক দরিদ্র শিক্ষাসংগ্রামী জগন্নাথপুরের পাড়ারগাঁও গ্রামের মো. আমির হোসেনকে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির পুরো খরচ দিয়েছিলেন।

ওসি হারুনুর রশিদ চৌধুরীর মেধাবী ও দরিদ্র পরিবারের শিক্ষার্থীদের প্রতি এই মানবিক টানের প্রশংসা করেছেন সুধীজন।

দরিদ্র শিক্ষার্থী হাবিজুর রহমান সুমনকে নিয়ে দৈনিক সুনামকণ্ঠে গত ১ নভেম্বর একটি প্রতিবেদন ছাপা হয়। এতে শাহাজালাল বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হওয়ার পরও ভর্তি নিয়ে সংশয়ে ছিলে তার পরিবার। সংবাদটি পড়ে দক্ষিণ সুনামগঞ্জ থানার ওসি হারুনুর রশিদ চৌধুরী হাবিজুর রহমান সুমনকে তার স্বপ্নের বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির জন্য সহযোগিতার প্রতিশ্রুতি দেন।

শনিবার দুপুরে তাকে কার্যালয়ে ডেকে নিয়ে ১০ হাজার টাকা তুলে দেন। এসময় তিনি আগামীতেও মেধাবী সুমনকে সহযোগিতা অব্যাহত রাখার আশ্বাস দেন।

হাবিজুর রহমান সুমন বলেন, ওসি হারুনুর রশিদ চৌধুরী স্যারের কাছে আমি ও আমার দিন মজুর মা কৃতজ্ঞ। আমার বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির টেনশন দূর করে দিয়েছেন স্যার। পাশাপাশি আগামীতেও সহযোগিতার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন স্যার।

দক্ষিণ সুনামগঞ্জ থানার ওসি হারুনুর রশিদ চৌধুরী বলেন, পিছিয়ে থাকা হতদরিদ্র পরিবারের মেধাবীদের পাশে দাড়ানো আমাদের সবার কর্তব্য। সহযোগিতা পেলে এরা জীবনযুদ্ধে জয়ী হয়ে দেশ ও মানুষের কল্যাণে কাজ করার সুযোগ পাবে। মানবিক টানেই তারা এগিয়ে আসবে। সুমন তার স্বপ্নের বিশ্ববিদ্যালয়ে ভরতি হয়ে কাঙ্খিত লক্ষ্যে পৌছুক এটা আমার কামনা।

সংবাদটি শেয়ার করতে নিচের অপশনে ক্লিক করুন

এ জাতীয় আরও সংবাদ 👇